কবিতা: মহামারির বিষের দংশন

-এস এম হৃদয় রহমান

চারদিকে ক্রন্দন আর অশ্রু ভেজা চোখ,
একেক কষ্টের একেক রূপ।

কেউ খাবারের জন্য কাঁদছে,
কেউবা বুক ভরে শ্বাস নেয়ার জন্য।

বাতাসে করোনার বিষ!

যে বিষে নীল হয়ে আসছে মানুষের শরীর।
সৃষ্টিকর্তার দিকে চেয়ে সবাই।

ক্রন্দন থামছে না আজ,
উজার করে চলেছে তবুও অক্সিজেনের গাছ।

বাতাসের ভারসাম্য হারিয়ে যাচ্ছে,
হারিয়ে যাচ্ছে মানুষের সুখ।

উপার্জনক্ষম মানুষটাকে হারিয়ে পরিবারগুলো হচ্ছে নিঃস্ব,
যেমন করে নিঃস্ব হয়ে গেছে ভালবাসা হারানো প্রেমিক!

বস্তির ঘরে খাবারের ক্রন্দনে বেড়িয়ে রিক্সাওয়ালা চাচাও মার খেল,
কে বুঝবে রিক্সাওয়ালা, ফেরিওয়ালার, দিনমজুর গরীব মানুষের ঘরের ক্রন্দন ?
এ ক্রন্দন যে পুলিশের কানে যায় না!

জীবন ছুটে চলছে, ওয়াক্তের পর ওয়াক্ত যাচ্ছে।
গরীবের ঘরের খবারের ওয়াক্ত যে বড় কঠিন!
যেমন কঠিন হয়েছে অক্সিজেন না পেয়ে জীবন বাঁচানো।

চারদিকে মহামারির বিষের দংশন!
সে সব চুরমার করে দিয়ে যাচ্ছে।
কেড়ে নিচ্ছে মানুষের স্বপ্ন, বেঁচে থাকার অন্ন।

 

শেয়ার করুন :