নতুন নির্বাচন কমিশন একটি সুষ্ঠু ও সুন্দর নির্বাচন উপহার দেবে আশাবাদ কৃষিমন্ত্রীর

আকাশছোঁয়া ডেস্ক : কৃষিমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ড. মো: আব্দুর রাজ্জাক বলেছেন, নির্বাচন কমিশন আইন অনুযায়ী রাষ্ট্রপতি নির্বাচন কমিশন গঠন করেছেন। প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও নির্বাচন কমিশনার হিসেবে যারা নিয়োগ পেয়েছেন তাদের ভাবমূর্তি খুবই উজ্জ্বল। অতীতে তারা স্ব স্ব পেশায় অত্যন্ত সফলতা ও দক্ষতার সাথে দায়িত্বপালন করেছেন। আমি যতদূর জানি, তাদের তেমন কোন রাজনৈতিক পরিচয় নেই। এ কমিশন গঠনের পর থেকে সব মহলে বিতর্ক কমে গেছে, শান্তির পরিবেশ তৈরি হয়েছে। একটি সুষ্ঠু ও সুন্দর নির্বাচনের প্রত্যাশা সবার মাঝে তৈরি হয়েছে এবং সবাই মনে করছে এই নতুন কমিশনের মাধ্যমে একটা ভাল নির্বাচন হবে।

২৭ ফেব্রুয়ারি রবিবার টাঙ্গাইলের বাসাইল উপজেলা পরিষদ প্রাঙ্গণে সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময়কালে মন্ত্রী এসব কথা বলেন। খবর এবং ছবি তথ্য অধিদফতর থেকে সরবরাহকৃত

মন্ত্রী আরো বলেন, দেশে নির্বাচন কমিশন গঠনের জন্য কোন আইন ছিল না। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তাঁর সরকার সুষ্ঠু সুন্দর নিরপেক্ষ নির্বাচনের জন্য ‘নির্বাচন কমিশন আইন’ প্রণয়ন করেছেন। এ আইনানুযায়ী রাষ্ট্রপতি গতকাল নির্বাচন কমিশন গঠন করেছেন। কাজেই, বিএনপি এ নির্বাচন কমিশনকে প্রত্যাখ্যান করুক বা না করুক- তাতে কিছু যায় আসে না। তারা যতোই আন্দোলনের হুমকি দিক, আগামী নির্বাচন বন্ধ করতে পারবে না। আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা তাদের সকল আন্দোলন মোকাবিলায় প্রস্তুত রয়েছে।

পরে কৃষিমন্ত্রী বাসাইল উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলনে অংশগ্রহণ করেন। এসময় মন্ত্রী বলেন, সম্মেলনের মাধ্যমে নতুন নেতৃত্ব আসবে, দল আরো শক্তিশালী ও সুসংগঠিত হবে। এই নতুন নেতৃত্ব আগামী নির্বাচনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

 

শেয়ার করুন :