বাংলাদেশ বিমান বাহিনী একাডেমিতে রাষ্ট্রপতি কুচকাওয়াজ-২০২১ অনুষ্ঠিত

আকাশছোঁয়া ডেস্ক : বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর ৭৯তম বাফা কোর্স ও ডিরেক্ট এন্ট্রি ২০২১ কোর্স এবং বিএলপিসি কোর্স এর কমিশন প্রাপ্তি উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি কুচকাওয়াজ-২০২১ (শীতকালীন) বৃহস্পতিবার ৩০ ডিসেম্বর যশোরে অবস্থিত বিমান বাহিনী একাডেমি প্যারেড গ্রাউন্ডে অনুষ্ঠিত হয়। খবর আন্তবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তরের (আইএসপিআর)

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রধান অতিথি হিসেবে ভিডিও টেলি কনফারেন্সের মাধ্যমে যুক্ত হয়ে কুচকাওয়াজ অভিবাদন গ্রহণ করেন এবং প্রধান অতিথির পক্ষে বাংলাদেশ বিমান বাহিনী প্রধান এয়ার চীফ মার্শাল শেখ আব্দুল হান্নান, বিবিপি, বিইউপি, এনএসডব্লিউসি, এফএডব্লিউসি, পিএসসি কুচকাওয়াজ পরিদর্শন, ক্যাডেটদের মাঝে ট্রফি এবং ফ্লাইং ব্যাজ বিতরণ করেন। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ভিডিও টেলি কনফারেন্স এর মাধ্যমে যুক্ত হলে বিমান বাহিনী প্রধান এয়ার চীফ মার্শাল শেখ আব্দুল হান্নান, বিবিপি, বিইউপি, এনএসডব্লিউসি, এফএডব্লিউসি, পিএসসি এবং বিমান বাহিনী একাডেমির কমান্ড্যান্ট এয়ার কমডোর মুহাম্মদ শরিফুল ইসলাম, বিপিপি, এএফডব্লিউসি, পিএসসি তাঁকে স্বাগত জানান।

অফিসার ক্যাডেট ফাহিম নুর শাকিল ৭৯তম বাফা কোর্স সেরা চৌকস কৃতিত্বের জন্য ‘সোর্ড অব অনার’ এবং অফিসার ক্যাডেট মোঃ তানজীম ইসলাম উড্ডয়ন প্রশিক্ষণে সেরা কৃতিত্বের জন্য ‘বীরশ্রেষ্ঠ মতিউর রহমান ট্রফি’ লাভ করেন। ৭৯তম বাফা কোর্স (গ্রাউন্ড ব্রাঞ্চ) এ সেরা কৃতিত্বের জন্য অফিসার ক্যাডেট সাদিয়া ফারুক ‘বিমান বাহিনী প্রধানের ট্রফি’ লাভ করেন। অফিসার ক্যাডেট সৈয়দা তাসনোভা তৌফিক জেনারেল সার্ভিস প্রশিক্ষণে সেরা কৃতিত্বের জন্য ‘কমান্ড্যান্টস্ ট্রফি’ লাভ করেন। ২ নং স্কোয়াড্রন চ্যাম্পিয়ন বিবেচিত হয়ে একাডেমি পতাকা লাভ করে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে তার ভাষণ শুরু করেন। তিনি শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেন বীর মুক্তিযোদ্ধাদের যাদের আত্যাৎসর্গের কারণে আজ আমরা স্বাধীন বাংলাদেশ পেয়েছি। তিনি গর্বের সাথে স্মরণ করেন যে জাতির পিতা একটি আধুনিক বিমান বাহিনীর স্বপ্ন দেখেছিলেন এবং তার এই স্বপ্ন বাস্তবায়নের লক্ষ্যে বর্তমান সরকার বিমান বাহিনীকে আরও শক্তিশালী ও যুগোপযোগী করে গড়ে তোলার জন্য নিরলস কাজ করে যাচ্ছে; বাহিনীতে সংযোজিত হচ্ছে নতুন নতুন সব সর্বাধুনিক বিমান এবং যন্ত্রপাতি। তিনি আরও বলেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এভিয়েশন অ্যান্ড অ্যারোস্পেস বিশ্ববিদ্যালয় সহ বাংলাদেশ বিমান বাহিনী পরিচালিত স্কুল ও কলেজসমূহ বাংলাদেশের শিক্ষা খাতে অসামান্য অবদান রেখে চলছে। যার মাধ্যমে রূপকল্প ২০৪১ এর জ্ঞান ভিত্তিক সমাজ ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠায় বাংলাদেশ বিমান বাহিনী আরও একধাপ এগিয়ে যাবে। বিশ্ব শান্তিরক্ষাসহ দেশের অভ্যন্তরে শান্তি-শৃঙ্খলা বজায় রাখার ক্ষেত্রে তিনি বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর অবদান এবং করোনা মহামারী মোকাবেলায় বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর তড়িৎ প্রতিক্রিয়া ও নিরলস প্রচেষ্টার ভূয়সী প্রশংসা করেন। বিমান বাহিনী একাডেমির বিশ্বমানের প্রশিক্ষণ, যার কারণে বিশে^র বিভিন্ন দেশের ক্যাডেটরা এ একাডেমিতে প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেছে এবং এর যুগোপযোগী কার্যক্রমকে দৃষ্টান্তমমূলক বলে অভিহিত করেন। পরিশেষে তিনি সদ্য কমিশনপ্রাপ্ত কর্মকর্তাদের সাফল্য কামনা করেন এবং বাংলাদেশ বিমান বাহিনী প্রধানকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।

এ কুচকাওয়াজ এর মাধ্যমে ১২ জন মহিলা অফিসার ক্যাডেট সহ মোট ৫৪ জন অফিসার ক্যাডেট কমিশন লাভ করেন। অফিসার ক্যাডেট একাডেমি আন্ডার অফিসার হামিম সারওয়ার আনুষ্ঠানিক কুচকাওয়াজের নেতৃত্ব প্রদান করেন। কুচকাওয়াজ শেষে বিমান বাহিনী একাডেমির বিভিন্ন প্রকার বিমানের আকর্ষণীয় ফ্লাইপাস্ট অনুষ্ঠিত হয়।

অন্যান্যের মধ্যে, উচ্চ পদস্থ সামরিক ও বেসামরিক কর্মকর্তাবৃন্দ, স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ এবং সদ্য কমিশনপ্রাপ্ত কর্মকর্তাদের অভিভাবকবৃন্দ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

 

শেয়ার করুন :