পর্যটকদের স্বাস্থ্য সুরক্ষায় বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ডের নির্দেশনা প্রদান

আকাশছোঁয়া ডেস্ক : কোনো ট্যুরের বিপরীতে হোটেল, পরিবহন ও পর্যটন আকর্ষণ স্থানের অনলাইন বুকিং এবং অনলাইন অর্থ পরিশোধ নিশ্চিত করা, ভ্রমণ করার পূর্বে সাধারণ স্বাস্থ্য সুরক্ষার বিষয়ে সচেতন হওয়া এবং স্বাস্থ্য সুরক্ষা উপকরণ সঙ্গে রাখাসহ বেশে কিছু নির্দেশনা প্রদান করেছে বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ড ।

কোভিড-১৯ বিস্তর রোধে পর্যটকদের জন্য বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ডের এই নির্দেশনা প্রদান করা হয় বলে আজ এক তথ্যবিবরনীতে বলা হয়েছে। বাংলাদেশের অভ্যন্তরে ভ্রমণের জন্য পর্যটকগণকে নির্র্দেশনা অনুসরণ করতে  বোর্ডের পক্ষ থেকে অনুরোধও জানানো হয়।

অন্যান্য নির্দেশনাগুলো হচ্ছে, হ্যান্ডশেক, আলিঙ্গন এড়াতে নিজস্ব ঐতিহ্য, সংস্কৃতি ও প্রথা অনুযায়ী শুভেচ্ছা জানানো ও গ্রহণ করা, ভ্রমণের সময় আসন ব্যবস্থায় শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখা, পর্যটন সেবা গ্রহণের পূর্বে সেবা সরবরাহকারী কর্তৃক (হোটেল, রেস্তোঁরা, স্থানীয় পরিবহন, ট্যুরিস্ট গাইড, স্যুভেনির শপ, পর্যটন আকর্ষণীয় স্থান, বিনোদন পার্ক ইত্যাদি) কোভিড-১৯ প্রটোকল রক্ষা করা হচ্ছে কিনা তা যাচাই করা।

এছাড়াও যে কোন লম্বা লাইন, ভিড় এবং দীর্ঘ সময়ক্ষেপণ এড়াতে ট্যুরের সময়সূচি, প্রবেশের টিকেট, সিট, রাইড ইত্যাদি ক্রয় পূর্বেই নিশ্চিত করা , গ্রুপ সফরের পরিবর্তে ছোট বা পারিবারিক ভ্রমণ করা,স্বাস্থ্য সম্পর্কে সচেতন থাকা এবং ভ্রমণসূচি বহির্ভূত আয়োজন পরিহার করার কথাও বলা হয় নির্দেশনায় ।

এতে আরো বলা হয় , ট্যুরের আগে অথবা ট্যুরকালীন ট্রাভেল এজেন্ট এবং অন্যান্য সেবা সরবরাহকারীকে পর্যটকের জরুরি যোগাযোগ নম্বর/অবস্থানের ঠিকানা এবং অ্যালার্জিজনিত (যদি থাকে) সমস্যাগুলো জানিয়ে রাখা,সকল প্রকার জরুরি ওষুধ, কাগজপত্র / যেকোন জটিল রোগের রিপোর্ট, পর্যাপ্ত নগদ অর্থ, পোশাক, পড়ার উপকরণ, ইনডোর গেমস, ছাতা/রেইন কোট, উইন্ড ব্রেকার, ক্যাপ/টুপি ইত্যাদি সঙ্গে রাখা, অপ্রীতিকর পরিস্থিতি এড়াতে পর্যটকের স্বাস্থ্য পরিস্থিতি ট্যুর ম্যানেজারের কাছে জানিয়ে রাখা, ভ্রমণের সময় স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করার বিষয়ে অনুরোধ করা।

ভ্রমণের সময় মাস্ক, ব্যক্তিগত হ্যান্ড স্যানিটাইজার ইত্যাদি ব্যবহার করা এবং সর্বসাধারণের স্পর্শস্থান যেমন: টেবিল, ডোর লক এবং হ্যান্ডেল, কাউন্টার টেবিল, চেয়ার, চেয়ার টেবিল কভার, মুদ্রণ ও প্রচার সামগ্রী, রেলিং, জানালার পর্দা, খাবারের পাত্র স্পর্শ করা বা এড়িয়ে চলার কথাও বলা হয় ।

স্থানীয় কোভিড-১৯ অপারেশন প্রটোকলের প্রতি সম্মান প্রদর্শন করা এবং স্থানীয় সেবা প্রদানকারী ও কর্মীদের সহযোগিতা করা সহ যারা করোনার টিকা গ্রহণ করেননি তাদেরকে পর্যটন কেন্দ্রে যাওয়া থেকে নিরুৎসাহিত করা, ভ্রমণের ক্ষেত্রে পরিবারের বয়স্ক সদস্যদের না নেয়া এবং  অসুস্থবোধ করলে ট্যুর ম্যানেজার/হোটেল/নিকটবর্তী হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে অবহিত করাসহ সরকার ঘোষিত অন্যান্য স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করার কথাও বলা হয়।

শেয়ার করুন :