মালালা ইউসুফজাইকে হত্যার হুমকি

আকাশছোঁয়া ডেস্ক :পাকিস্তানের নোবেল শান্তি পুরস্কার বিজয়ী তরুণী মালালা ইউসুফজাইকে টুইটারে হত্যার হুমকি দিয়েছে ‘তহরিক-ই-তালিবান পাকিস্তান’। নয় বছর আগে ২০১২ সালে নোবেলজয়ী সমাজকর্মী মালালা ইউসুফজাইকে গুলি করেছিল এক সন্ত্রাসবাদী।

সরাসরি টুইটারে হুমকি দিয়ে ‘তহরিক-ই-তালিবান পাকিস্তান’-এর প্রাক্তন মুখপাত্র এহসান জানিয়েছে, ”পরের বার আর কোনও ভুল হবে না।” অর্থাৎ আবারও মালালাকে গুলি করার সুযোগ পেলে সে লক্ষ্যভেদ করবে। এই ভয়ংকর হুমকির পরে তার অ্যাকাউন্ট চিরতরে বন্ধ করে দিয়েছে টুইটার কর্তৃপক্ষ।

মালালা ইউসুফ টুইটারে এক বিবৃতিতে লেখেন, এক তহরিক-ই-তালিবান পাকিস্তানের প্রাক্তন মুখপাত্র আমার ও আরও অনেক নিরীহ মানুষের উপরে হামলার দায় স্বীকার করেছে। এবার সে সোশ্যাল মিডিয়ায় হুমকিও দিতে শুরু করেছে।

এদিকে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর একজন উপদেষ্টা রাউফ হাসান বলেছেন, সরকার ওই হুমকি সম্পর্কে তদন্ত করছে। তারা টুইটার কর্তৃপক্ষকে তার অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেওয়ার অনুরোধ করেছে। পাকিস্তানি তালেবানের দীর্ঘদিনের সদস্য এহসান মালালাকে দেশে ফেরার আহ্বান জানিয়ে বলেছে, তারা মালালা ও তার বাবার সঙ্গে একটি ফয়সালায় যেতে চায়।

২০১২ সালের অক্টোবর মাসে স্কুল থেকে ফেরার সময় মালালাকে লক্ষ্য করে গুলি চালিয়েছিল এহসান। সেই সময় তাঁর বয়স ছিল পনেরো। মুখোশধারী আততায়ীর গুলি তার বাম ভুরু ঘেষে কাঁধে এসে লাগে। সেই হামলার ঘটনায় সমালোচনার ঝড় উঠেছিল পুরো বিশ্বে। এবারের হুমকি আবারও যেন ফিরিয়ে দিলো সেই ভংয়কর ঘটনার স্মৃতি।

 

শেয়ার করুন :